কোন প্রতিকুলতাই বাঁধা হতে পারেনি ভোলার ছেলে”রনক রায়হান”এর

0
59

বিশেষ প্রতিনিধি।
ভোলার সদর উপজেলার আলীনগর ইউনিয়নের কৃতিসন্তান খন্দকার রনক রায়হান । শত বাধা বিপত্তি উপেক্ষা করে আজ সে সফল । প্রথমে উপন্যাস দিয়ে লেখা লেখি জীবন শুরু ।
তার প্রথম কাব্যগ্রন্থ অবিনাশী আত্মা । ছায়ানটের বন্ধু বিশাখার অবিশ্বাস্য উদ্যোগে প্রথম প্রকাশিত হয় অবিনাশী আত্মা, কাব্যগ্রন্থটি যা পাঠক মহলে ব্যাপক জনপ্রিয়তা পায় ও প্রকাশনী মহলে তার কদর বৃদ্ধি পায়।
এছাড়া রনক রায়হানের লেখা উপন্যাস হৃদয়ের অন্তরালে তুমি, ভাঙ্গা ঘর, মনের মানুষ হয়না যেন পর সহ এপযন্ত মোট ২৬টি উপন্যাস তাহার প্রকাশিত হয়েছে।আর যারফলে দিনদিন তাহার লেখায় বেড়ে যায় উৎসাহ ও গভীর মনযোগ এবং নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করার উদ্যম ।

এদিকে তাহার পরিচয় হয় দেশের জনপ্রিয় কন্ঠ শিল্পী আশরাফ উদাসের সাথে ।
যার হাতেই গান লেখার হাতে খরি তাহার।
এছাড়াও রনক রায়হান দেশের জনপ্রিয় সব কন্ঠশিল্পী আশরাফ উদাস ছাড়াও জনপ্রিয় ফোক সম্রাজ্ঞী মমতাজ,আগুন,ও
সাবিনা ইয়াসমিন,
কিরণ চন্দ্র রায়,চন্দনা মজুমদার সহ দেশের বিখ্যাত সব শিল্পীদের কন্ঠে স্থান পেয়েছে তার লেখা অজস্র গান।
উল্লেখ্য জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখমুজিবুর রহমান’কে নিয়ে তার লেখা আমি ধন্য হয়েছি আমি পূর্ণ হয়েছি ।
এই গানটিও দেশের একাধিক স্যাটেলাইট ও টিভি চ্যানেলে মিডিয়ায় ব্যাপকভাবে প্রচারিত হয়ে বেশ প্রশংসিত হয়েছেন তিনি ।
রনক রায়হান গান লেখার পাশাপাশি তিনি একজন চিত্র গ্রাহকও বটে। তার চিত্রগ্রহণ ও পরিচালনায় বর্তমানে চলছে বেশ কিছু মিউজিক ভিডিও এবং শট ফিল্মের কাজ।

এব্যপারে গীতিকার রনক রায়হানের দেওয়া এক সাক্ষাতকারে বলেন, আমার দর্শকের ভালবাসা ও দেশ প্রেম ও আত্ম বিশ্বাসই আমার পথ চলার একমাত্র উৎস। তিনি দেশের সকল, ভক্ত, বন্ধু ও স্বজন, সুভাকাঙ্খী সকলের কাছে একান্তভাবে দোয়া কামনা করেছেন।