ভোলায় ট্রাক ড্রাইবারের হাতের রগ কর্তন

0
241

মিলি সিকদার, ভোলা:
ভোলার বোরহানউদ্দিন মুঘ ডাল কাটতে না দেওয়ায় মো:দাইমুদ্দি ছেলে, মো: ওলিউল্লা খান (২৭) নামে এক ট্রাক ড্রাইভার কে কুপিয়ে জখম করা হয়েছে। তার তার হাতের রগ কেটে দিয়েছে দৃর্বিত্তরা। গুরুতর আহত ওয়ারিউল্লাহ খানকে ভোলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। গত শুক্রবার রাত ৮ টা কতুবা ৮নং ওয়ার্ড লঞ্চ ঘাটে ওই ঘটনা ঘটে। থানা মামলা করতে গেলে পুলিশ আহত ওয়ালি উল্লার জকমের অবস্থা খারাপ দেখে তাকে দ্রুত হাসপাতালে পাঠিয়ে দেন। অভিযোগ করে হাজেরা বলেন, কুতবা ৮নং ওয়ার্ড কালি মন্দির সামনে আমরা নগদ টাকা দিয়ে মুঘ ক্ষেত রাখি, আমাদের ক্ষেত থেকে আমার ভাইয়ের ছেলে রাকিব না বলে মুঘ কেটে নিয়ে যাচ্ছিল, আমার স্বামী দাইমুদ্দি বাধা দিলে তাকে হত্যার হুমকি দেয় রাকিব। রাকিব এর মা ও তার দুই ভাই আমাকে বাড়ি এসে হুমকি দিয়ে যায় যে আমাদের মুঘ ক্ষেতে তারা গরু দিয়ে খাওয়াবে। এই ঘটনার সপ্তাহ খানেক পর আমার ছেলে ওলিউল্লা কে একা লঞ্চ ঘাটে পেয়ে আমার ভাই খালেক এর নেতিত্বে তার ছেলেরা কবির,রাকিব ও মনির ও বহিরাগত ক্যাডার দেউলার সবুজ জনসম্মুখে আমার ছেলেকে বগি দিয়ে কুপিয়ে তার দুই হাত বুক জখম করে এবং হাতের ২টি রগ কেটে দেয়। তাকে হত্যার উদ্দেশ্য মাথা আঘাত করতে গেলে আমি হাত দিয়ে ঠেকালে আমার হাত ও জখম হয়। আমি এই পরিকল্পিত হামলার বিচারের জন্য এমপি মহোদয় ও প্রশাসনের সু-দৃষ্টি কামনা করছি। এদিকে গতকাল ওয়ালী উল্লার মা বাদী হয়ে ভোলার সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট ফরিদুল আলমের কোর্টে মামলা দিলে মামরাটি এফআইআর হিসেবে গ্রহন করে ওসি বোরহানউদ্দিন থানাকে দ্রুত ব্যাবস্থা নেয়ার আদেশ দেন ভোলার সিনিয়র জুডিসিয়ার ম্যাজিষ্ট্রেট ফরিদুল আলমের আদালত।