ভোলায় আড়াই লাখ শিশুকে খাওয়ানো হবে ‘এ’ ক্যাপসুল

0
76

বিশেষ প্রতিনিধি-ভোলানিউজ.কম,

সমৃদ্ধ বাংলাদেশ ও দক্ষ জনশক্তি গড়তে ভোলায় আগামী ১৪ জুলাই শনিবার ভিটামিন প্রথম রাউন্ড ‘এ’ প্লাস ক্যাম্পেইন উদযাপিত হবে। ওই দিন সারা দেশের মতো ভোলাতেও প্রায় আড়াই লাখ শিশুকে ‘এ’ ক্যাপসুল খাওয়ানো হবে। ভিটামিন ‘এ’ ক্যাপসুল শিশুদের অপুষ্টি নিরাময়, অন্ধত্ব প্রতিরোধ, শিশুর স্বাভাবিক শারীরিক ও মানসিক বিকাশ এবং রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়।

মঙ্গলবার বেলা ১১টায় ভোলা সিভিল সার্জন কার্যালয় মিলনায়তনে এক কর্মশালায় সিভিল সার্জন ডা. রথীন্দ্রনাথ মজুমদার এসব কথা বলেন।

এ সময় আরও বক্তব্য রাখেন, ভোলা জেলা পরিবার পরিকল্পনা উপ-পরিচালক মাহমুদুল হক, স্বাস্থ্য শিক্ষা কর্মকর্তা  সোলায়মান প্রমুখ।

কর্মশালায় ভোলায় কর্মরত বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকরা উপস্থিত ছিলেন।

সিভিল সার্জন আরও বলেন, ভোলায় ৬ থেকে ১১ মাস বয়সী ২৮ হাজার ৩৭০ শিশুকে ১টি করে নীল রঙের ভিটামিন ‘এ’ ক্যাপসুল এবং ১২ থেকে ৫৯ মাস বয়সী ২ লাখ ২৬ হাজার ৫৩০ শিশুকে লাল রঙের ভিটামিন ‘এ’ ক্যাপসুল খাওয়ানো হবে।

ভোলা জেলার ৬৮টি ইউনিয়নে ১৩টি স্থায়ী কেন্দ্র, ১ হাজার ৬৮০টি অস্থায়ী কেন্দ্র, ৭৮টি ভ্রাম্যমাণ কেন্দ্র ও ১১৯টি দুর্গম (চর) কেন্দ্রে সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত ‘এ’ ক্যাপসুল খাওয়ানো হবে।

ভোলার সাত উপজেলার ৩১৩ টিকাদান কর্মী, ২০০পরিবার পরিকল্পনা কর্মী, ২০৮সিএইচসিপি কর্মী, ১৪২সুপারভাইজার, ৭২১স্বাস্থ্যকর্মী ও তিন হাজার ১০৫ স্বেচ্ছাসেবক ক্যাম্প বাস্তবায়নে  কাজ করবে।

সিভিল সার্জন আরও জানান, কোনো শিশু যাতে এ ক্যাম্পেইন থেকে বাদ না পড়ে সেজন্য বাসস্টান্ড ও লঞ্চঘাটগুলোতেও অস্থায়ী ক্যাম্প বসানো হবে।

এ ক্যাপসুলগুলো বেলজিয়াম থেকে আমদানি করে আন্তর্জাতিক মানের ল্যাবরেটরিতে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা হয়েছে। তাই এর কোনো পাশ্বপ্রতিক্রিয়া নেই বলে তিনি জানান।

(আল-আমিন এম তাওহীদ, ১০জুলাই-২০১৮ই)